LOADING

Type to search

ভারতের ১৬টি সুন্দর পর্যটন স্থান যেখানে ভ্রমন নিষিদ্ধ | প্রথম পর্ব |

ভারতের ১৬টি সুন্দর পর্যটন স্থান যেখানে ভ্রমন নিষিদ্ধ | প্রথম পর্ব |

Share
Spread the love
  • 546
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    546
    Shares

আমি নিশ্চিত ছোটবেলায় আপনারা অন্তত একবার হলেও “আহাট” দেখেছন, অথবা আপনি নিশ্চই ভূতের সিরিয়াল দেখতে পাগল ছিলেন এবং প্রতিটি পর্বের পুনর্প্রচার ও দেখতেন। রোমাঞ্চকর ও ভৌতিক স্থানগুলি হামেশাই আমাদের মধ্যে শিহরণ জাগায়, ভারতবর্ষ একটি রহস্যময় দেশ, যে দেশ অনেক কুসংস্কারাচ্চন্ন বিশ্বাস ও গল্পে ঠাসা।এই অস্বাভাবিক ক্রিয়াকলাপ যে শুধুমাত্র বইতেই ঘটে তেমন নয়, বাস্তব জীবনেও এর সম্মুখীন হওয়া যায়। যদি কেউ তার নিজস্ব গন্ডির থেকে বেরিয়ে একটি হাড়-হীম করা অভিজ্ঞতা অর্জন করতে চান তারা তাদের তল্পি-তল্পা গুটিয়ে ধৈর্য ধরে বসুন। এখানে ভারতের ১৬ টি নিষিদ্ধ ভ্রমণ স্থান এর বর্ণনা দেওয়া হলো যেগুলিতে অতিপ্রাকৃত উপস্থিতির কারণে পর্যটন সীমানার বাইরেই রাখা হযেছে। যদি সাহস থেকে থাকে তো এক্ষুনি উত্ঘাটনে বেড়িয়ে পড়ুন।

১. ভানগর দুর্গ – পৃথিবীর অন্যতম একটি ভুতুরে স্থান।
ভানগর দুর্গ শুধুমাত্র ভারতের সবচেয়ে ভৌতিক জায়গাই নয় সারা বিশ্বের মধ্যেও এটি ভৌতিক স্থানগুলোর শীর্ষে রয়েছে। এই দুর্গ রাজস্থানে অবস্থিত, ভারত সরকারের পক্ষ্ থেকে আনুষ্ঠানিকভাবে এই দুর্গকে ভৌতিক বলে ঘোষণা করা হয়েছে। এই দুর্গে প্রবেশের জন্য কতৃপক্ষের আদেশ ও নিয়ম খুব কঠোর এবং যারা এখানে সময় কাটিয়ে গেছেন, তারা তাদের গল্পে অস্বাভাবিক ক্রিয়াকলাপের কথা বর্ণনা করেছেন।

ভানগর দুর্গ

ভানগর দুর্গ

২. বৃজরাজ ভবন প্রাসাদ, কোটা, রাজস্থান। যেখানে শ্রী বার্টন ও তার পুত্রকে খুন করা হয়েছিল।
রাজস্থানের কোটার বৃজরাজ ভবন হলো একটি বিশাল রাজকীয় স্থান। এখানে প্রবেশ নিষিদ্ধ, এখানকার রক্ষীরাও ভূতুরে ক্রিয়াকলাপ সম্পর্কে অভিযোগ জানিয়েছেন। ব্রিটিশ আমলে জনৈক বার্টন এবং তার ছেলেকে এখানে খুন করা হয়। এখানকার অধিবাসী ও রক্ষিবাহিনীদের থেকে এই স্থানের বিভিন্ন ভৌতিক অভিজ্ঞতার কথা গণমাধ্যমের সুত্রে জানা গিয়েছে।

ভবন প্রাসাদ, কোটা, রাজস্থান। যেখানে শ্রী বার্টন ও তার পুত্রকে খুন করা হয়েছিল।

বৃজরাজ ভবন প্রাসাদ, কোটা, রাজস্থান।

৩. ডুমাস বীচ – গুজরাটের সবচেয়ে সুন্দর বীচ, এখানে একজন মানুষ রাত কাটানোর জন্য গেছিলেন, কিন্তু আর ফেরেননি
গুজরাটের ডুমাস সৈকত হলো অন্যতম সুদৃশ সৈকত কিন্তু জায়গাটি মোটেই উপভোগ্য নয় কারণ ভারতীয় সরকার স্থানটিকে ভূতুরে স্থান হিসেবে ঘোষণা করেছেন। সুরাটের স্থানীয় বাসিন্দাদের মতে কোনো ব্যক্তি যদি এই সমুদ্র সৈকত পরিদর্শনে এসে এক রাত কাটান, তাহলে তারা আর কখনই ফিরে আসেন না। এই জায়গায় আগে একটি হিন্দু শ্মশান ছিল।

ডুমাস বীচ

ডুমাস বীচ – গুজরাটের সবচেয়ে সুন্দর বীচ

৪. কুদহারা – রাজস্থানের ভৌতিক গ্রাম।
রাজস্থানের দ্বিতীয় ভয়ংকর জায়গাটি হলো কুদহারা, ১৯৯০ সাল থেকে এই গ্রাম ভৌতিক গ্রাম হিসাবে পরিচিত। একটি উপকথা অনুসারে, আট শতাব্দীর অধিক ধরে সেখানে থাকা গ্রামবাসীরা হঠাত এক রাত্রিতে বিলুপ্ত হয়ে যায় এবং আর ফিরে আসেনি। কোনো ব্যক্তি এই গ্রামে জমি ও সম্পত্তি দখলের চেষ্টা করলে গ্রামে উপস্থিত আত্মা তাকে মেরে ফেলে।

কুদহারা

কুদহারা

৫. ডি’সুজা বস্তি – মহারাষ্ট্রের সর্বাধিক ভৌতিক স্থান।
মুম্বাইবাসীরা মহিমের ডি’সুজা বস্তির সঙ্গে খুব ভালোভাবে পরিচিত কারণ এটি মহারাষ্ট্রের পোড়ো জাগাগুলির মধ্যে সবথেকে ভয়ানক জায়গা। স্থানীয় লোকদের মতে এই জায়গায় একটি মহিলার আত্মা আছে, যিনি কুয়ো থেকে জল তুলতে গিয়ে মারা যান। তিনি কারো ক্ষতি করেন না কিন্তু মানুষদের এই গ্রামের কাছে ঘেসতে দেন না।

ডি’সুজা বস্তি

ডি’সুজা বস্তি

চলবে………


Spread the love
  • 546
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    546
    Shares
Tags:

You Might also Like

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *